বাংলাদেশ দূতাবাসের বাণিজ্যিক কাউন্সেলর মোহাম্মদ হাসান আরিফ। ছবি : দূতাবাস

বাংলাদেশে জাপানী বিনিয়োগ বৃদ্ধির লক্ষ্য নিয়ে ২৪ এপ্রিল বুধবার টোকিওতে একটি সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়। টোকিওস্থ বাংলাদেশ দূতাবাসের সহযোগিতায় জাপান ইন্টারন্যাশনাল কোপারেশন এজেন্সি (জাইকা) ও জাপান এক্সটারনাল ট্রেড অরগানাইজেশন (জেট্রো) যৌথভাবে এই সেমিনারের আয়োজন করে। জেট্রো সদর দপ্তরে অনুষ্ঠিত সেমিনারে ১৫০ জন জাপানী ব্যবসায়ী প্রতিনিধি  অংশগ্রহণ করেন।

বাংলাদেশ দূতাবাসের বাণিজ্যিক কাউন্সেলর মোহাম্মদ হাসান আরিফ সেমিনারে তাঁর স্বাগত বক্তব্যে বলেন, ‘বাংলাদেশের অর্থনৈতিক উন্নয়ন ও সামাজিক অগ্রগতি দৃশ্যমান, বিশ্ব এক আধুনিক, ডিজিটাল ও নতুন বাংলাদেশকে দেখতে পাচ্ছে। তিনি দূতাবাস ও রাষ্ট্রদূতের পক্ষ থেকে সেমিনারের আয়োজক ও অংশগ্রহণকারীদের ধন্যবাদ জানান। কাউন্সেলর বাংলাদেশের সামগ্রিক অর্থনৈতিক অগ্রগতির চিত্র এবং মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার গতিশীল নেতৃত্বে দেশের উন্নয়ন ও বাংলাদেশে বিদ্যমান ব্যবসা-বাণিজ্যের বিভিন্ন সুযোগসুবিধা এবং সম্ভাবনা তুলে ধরেন।

জেট্রো সদর দপ্তরে অনুষ্ঠিত সেমিনারে অংশগ্রহণকারী ১৫০ জন জাপানী ব্যবসায়ী প্রতিনিধি। ছবি : দূতাবাস

আরিফ বলেন আই.এম.এফ এর মতে বাংলাদেশ বিশ্বে দ্বিতীয় দ্রুত বর্ধিষ্ণু অর্থনীতি, এছাড়া জাপান-বাংলাদেশের মধ্যে চমৎকার দ্বিপক্ষীয় সম্পর্ক বিদ্যমান যা বাংলাদেশে বিনিয়োগের অনুকূল পরিবেশ তৈরি করেছে। তিনি বাংলাদেশে বিনিয়োগে জাপানী ব্যবসায়িদের আহ্বান জানান এবং তাঁদের যেকোন প্রয়োজনে দূতাবাসের সার্বক্ষণিক সহযোগিতার আশ্বাস প্রদান করেন।

জাইকার বাংলাদেশের প্রধান প্রতিনিধি হিতোশি হিরাতা বাংলাদেশের আড়াইহাজার অর্থনৈতিক অঞ্চল এবং এর সুযোগসুবিধা সম্পর্কে জাপানী ব্যবসায়ীদের অবগত করেন। সেমিনারে জেট্রো ঢাকার সাবেক প্রতিনিধি  তাইকি কোগা বাংলাদেশের অর্থনীতি এবং বিনিয়োগ পরিবেশ নিয়ে আলোচনা করেন।

বক্তব্য দিচ্ছেন হোন্ডা কোম্পানির কাজুয়া হাসি। ছবি : দূতাবাস

এছাড়া বাংলাদেশে হোন্ডা মটর সাইকেলের নতুন ফ্যাক্টরি প্রতিষ্ঠা ও ব্যবসা পরিচালনা করার অভিজ্ঞতা বর্ণনা করেন হোন্ডা কোম্পানির কাজুয়া হাসি।

উম্মুক্ত আলোচনা ও প্রশ্ন-উত্তর পর্বের মাধ্যমে সেমিনারটি সমাপ্ত হয়।

আজকের পত্রিকা/আ.স্ব/