এম. এ. আর. শায়েল
সিনিয়র সাব এডিটর

সাবেক বিমান ও পর্যটন মন্ত্রী আলহাজ্ব এ কে এম শাহজাহান কামাল

দেশজুড়ে শুদ্ধি অভিযানকে অভিনন্দন জানিয়ে লক্ষ্মীপুর-৩ আসনের সাংসদ এবং সাবেক বিমান ও পর্যটন মন্ত্রী আলহাজ্ব এ কে এম শাহজাহান কামাল বলেছেন, ‘এ কথা ভুলে গেলে চলবে না যে, বেগম খালেদা জিয়া এতিম শিশুদের টাকা চুরির দায়ে আদালত কর্তৃক দোষী সাব্যস্ত হয়ে বর্তমানে জেল খাটছেন। একজন দুর্নীতিগ্রস্ত ব্যক্তির পরিচয় একটাই তিনি দুর্নীতিবাজ।’

আওয়ামী লীগে কোনো জুয়াখোর, মাদকসেবী, মাদক ব্যবসায়ী, চাঁদাবাজ, টেন্ডারবাজ, দুর্নীতিপরায়ণ সন্ত্রাসীদের জায়গা নেই।

৭ অক্টোবর সোমবার রাতে হিন্দু সম্প্রদায়ের বৃহৎ ধর্মীয় উৎসব দূর্গা পূজার নবমীতে লক্ষ্মীপুরের প্রত্যন্ত এলাকায় পূজা মন্ডপ পরিদর্শন কালে তিনি এ কথা বলেন।

সাবেক এ মন্ত্রী আরও বলেন, বর্তমান সরকার সকল সম্প্রদায়ের ধর্মীয় উৎসব যথাযোগ্য মর্যাদায় পালনে শতভাগ আন্তরিক। যার প্রেক্ষিতে বিপুল উৎসাহ উদ্দীপনার মাধ্যমে সারাদেশে দূর্গোৎসব অনুষ্ঠিত হচ্ছে। বাংলাদেশ সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির দেশ।

এখানে কেউ ধর্মীয় বিবেচনায় নির্যাতনের শিকার হন না। এ জেলার মুসলামন, হিন্দুসহ অন্য ধর্মাবলম্বীরা শান্তিপূর্ণভাবে সহবস্থান করছেন; যা অনন্য দৃষ্টান্তও স্থাপন করেছে। এসময় তিনি সংখ্যালঘু সম্প্রদায় নিয়ে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের কাছে প্রিয়া সাহার অভিযোগ চরম মিথ্যাচার কিনা এমন প্রশ্ন ছুঁয়ে দিলে সনাতন ধম্বালম্ভীরা তাতে মিথ্যাচার বলে সমর্থন জানান।

পরিদর্শনের সময় সাংসদের সাথে ছিলেন লক্ষ্মীপুর আদালতের সরকারি কৌশুলী (পিপি) আলহাজ্ব জসিম উদ্দিন, সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোট জেলা শাখার সভাপতি জাকির হোসেন ভূঁইয়া আজাদ, জেলা আওয়ামীলীগ নেতা নুরুল ইসলাম বাবুল, মোজাম্মেল হায়দার ভূঁইয়া মাছুম, ভবানীগঞ্জ ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাবেক সভাপতি আব্দুল খালেক বাদল, জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক নিশান সহ দলীয় নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

তিনি লক্ষ্মীপুর সদর আসনের শ্যামসুন্দর জিউ মন্দির, কালী বাড়ি মন্দির, চন্দ্রগঞ্জ বাজারের কালি মন্দির দেবালয় ও সর্বজয়া পূজাম-পসহ বেশ কয়েকটি পূজা মন্ডপে অনুদান প্রদান করেন।

মোঃ সোহেল রানা/লক্ষ্মীপুর