রিজার্ভ রাখা বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন করপোরেশনের (বিআরটিসি) বাস। ছবি : সংগৃহীত

সিলেট-কোম্পানীগঞ্জ সড়কে দীর্ঘদিনের যাত্রী দুর্ভোগ লাঘব হতে যাচ্ছে। এ সড়কে যাত্রীসেবা নিশ্চিত করতে সড়কটিতে চালু হয়েছে দোতলা বিআরটিসি বাস।

শনিবার সকাল ১১টায় এই বাস সার্ভিসের উদ্বোধন করেন প্রবাসী কল্যান ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী ইমরান আহমদ।

প্রায় এক দশক আগে সিলেট-জৈন্তাপুর সড়কে বিআরটিসির দ্বিতল বাস সার্ভিস চালু হয়েছিল। কিন্তু পরিবহন শ্রমিকদের আন্দোলনের মুখে এক পর্যায়ে বন্ধ হয়ে যায় সরকারী এই গণপরিবহন।

বর্তমানে সিলেট জেলার অন্য কোন সড়কে বিআরটিসির দ্বিতল বাস সার্ভিস নেই।

জানা যায়, সিলেট-কোম্পানীগঞ্জ সড়কটি নানা কারণে গুরুত্বপূর্ণ। এই সড়ক দিয়ে প্রতিদিন শত শত পাথরবাহী ট্রাক ভোলাগঞ্জ থেকে দেশের বিভিন্ন স্থানে পাথর নিয়ে যায়। ভোলাগঞ্জ সাদা পাথর পর্যটন কেন্দ্রেও যেতে হয় এ সড়ক দিয়ে।

কিন্তু ভালো গণপরিবহন না থাকায় ব্যবসায়ী, পর্যটক ও স্থানীয়রা কোম্পানীগঞ্জ ও ভোলাগঞ্জ যেতে নানা দুর্ভোগের স্বীকার হতেন। এই সড়ক দিয়ে চলাচলকারী অটোরিকশা চালকরাও তাদের মনগড়া ভাড়া আদায় করতেন।

পর্যটক ও স্থানীয়দের দাবির প্রেক্ষিতে শনিবার থেকে এই সড়কে দ্বিতল বাস সার্ভিস চালু হয়েছে।

-শায়েল