আজ রবিবার ভোর ৫টায় সুন্দরবন হয়ে বাংলাদেশে প্রবেশ করেছে ঘূর্ণিঝড় ‘বুলবুল’। ক্রমেই এটি উত্তর পূর্ব দিকে অগ্রসর হচ্ছে।

বর্তমানে ঘূর্ণিঝড়টি সাতক্ষীরা খুলনা বাগেরহাট অঞ্চলে অবস্থান করছে। পরবর্তীতে এটি ঢাকা-কুমিল্লার দিকে অগ্রসর হ‌ওয়ার কথা বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অধিদফতর।

সকাল ৮টায় এক ব্রিফিং এ এসব তথ্য জানায় আবহাওয়া অধিদফতর।

আবহাওয়া অধিদফতর জানায় আজ দুপুর বা বিকাল নাগাদ বৃষ্টিপাত বাড়বে বলেও আশঙ্কা করা হচ্ছে। বাতাসের গতিবেগ ঘণ্টায় ৮০-১০০ কিলোমিটার।

বর্তমানে উপকূলীয় ৫ জেলার ওপর দিয়ে ঘণ্টায় ৮ কি.মি. বেগে এগোচ্ছে বুলবুল। এর কেন্দ্রে সাগর উত্তাল অবস্থায় আছে। উপকূলীয় এলাকায় জলোচ্ছ্বাস হওয়ার প্রবল সম্ভাবনা আছে বলেও জানিয়েছে আবহাওয়া অধিদফতর।

ইতোমধ্যেই জোয়ারের পানি ঢুকে পড়েছে সাতক্ষীরা,বাগেরহাট ও ভোলা লোকালয়ে। ভেঙ্গে পড়েছে বেশ কিছু ঘর-বাড়ি ও গাছপালাও।

মোংলা ও পায়রা বন্দরকে এখনও ১০ নম্বর মহাবিপদ সংকেত দেখিয়ে যেতে বলা হয়েছে। উপকূলের ৯টি জেলা এই সংকেতের আওতায় থাকবে।

একইভাবে চট্টগ্রাম বন্দরে ৯ নম্বর মহাবিপদ সংকেত অব্যাহত থাকবে। আজ বিকালের পর থেকে পরিস্থিতির উন্নতি হবে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অফিস।