ঘুষের টাকাসহ সাব-রেজিস্ট্রার মো. আব্দুর রহমান ভুইঞা আটক

ঘুষের টাকাসহ সাব-রেজিস্ট্রার মো. আব্দুর রহমান ভুইঞাকে (৪৮) আটক করছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। বুধবার সন্ধ্যায় দুদক কর্মকর্তারা তার কাছ থেকে ঘুষের ৯৫ হাজার ৫০০ টাকা জব্দ করেন।

আব্দুর রহমানের বাড়ি মুন্সীগঞ্জ জেলায়। তিনি ২০১৮ সালের ২ এপ্রিল শ্রীবরদীতে সাব-রেজিস্ট্রার হিসেবে যোগদান করেন।

দুদক সূত্রে জানা গেছে, দীর্ঘদিন যাবৎ শ্রীবরদীর সাব-রেজিস্ট্রার আব্দুর রহমান ঘুষের মাধ্যমে দলিল নিবন্ধনের কাজ করেছেন এবং ঘুষ না দিলে বিভিন্নভাবে সেবাগ্রহীতাদের হয়রানি করে চলেছেন- এমন অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে বুধবার সন্ধ্যায় দুদকের উপ-পরিচালক মোস্তাফিজুর রহমানের নেতৃত্বে সহকারী পরিচালক মো. আতিকুল আলম ও কোর্ট পরিদর্শক বুলবুল মিয়াসহ দুদক কর্মকর্তারা সাব-রেজিস্ট্রার আব্দুর রহমানের অফিস কক্ষে অভিযান চালান।

এ সময় তার প্যান্টের পকেট থেকে দুদক কর্মকর্তারা ৯৫ হাজার ৫০০ টাকা জব্দ করেন। পরে তাকে আটক করা হয়।

দুদকের উপ-পরিচালক মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তিনি (আব্দুর রহমান) ঘুষ নেয়ার অভিযোগ স্বীকার করেছেন। এ ছাড়াও জব্দকৃত টাকা ঘুষের বলে তিনি স্বীকার করেন।

এ ব্যাপারে শ্রীবরদী থানায় মামলা দায়ের ও আটক আব্দুর রহমানকে আদালতে সোপর্দ করার প্রক্রিয়া চলছে। অভিযানকালে শ্রীবরদী থানার পুলিশ সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।