ঘরোয়া ত্বক কোমল ও উজ্জ্বল করুন। ছবি: সংগৃহীত

তরুণ বয়সে প্রত্যেক নারী ও পুরুষ কোমল এবং উজ্জ্বল ত্বকের অধিকারী হোন। কিন্তু বয়স বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে ত্বক খুব নিস্তেজ এবং কালো হতে থাকে। বয়স ত্রিশ ছুঁলেই ত্বকে একটা ডার্ক শেড পড়ে ফলে ত্বক আর আগের মতো উজ্জ্বল ও কোমল দেখায় না। ত্বক উজ্জ্বল, মোলায়েম এবং কোমল রাখতে ঘরোয়া কিছু উপায় রয়েছে। এই উপায়ে রান্নাঘর থেকে বিভিন্ন উপাদান নিয়ে খুব সহজেই আপনি ত্বকের যত্ন নিতে পারবেন।

টমেটো

টমেটোতে উচ্চ পরিমাণে ভিটামিন সি থাকে যা ত্বক উজ্জ্বল রাখে। ছবি: সংগৃহীত

টমেটোতে লাইকোপিন ও অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট রয়েছে যা সূর্যের ক্ষতির বিরুদ্ধে ত্বকের সুরক্ষা দেয়। এছাড়াও, এটি ত্বককে কম সংবেদনশীল করে ফলে ত্বক UV রশ্মির ক্ষতিকর প্রভাবমুক্ত থাকে। টমেটোতে উচ্চ পরিমাণে ভিটামিন সি থাকে যা ত্বক উজ্জ্বল রাখতে সহায়তা করে ।

শসা

শসা কয়েক টুকরো করে তা মুখে ১৫ মিনিট ধরে রাখুন, তারপর ধুঁয়ে ফেলুন। ছবি: সংগৃহীত

শসাতে বিদ্যমান অ্যাস্ট্রিনজেন্ট ত্বককে উজ্জ্বল রাখে এবং ভিটামিন ‘এ’ ত্বকের মেলানিন উৎপাদন নিয়ন্ত্রণ করে। শসা কয়েক টুকরো করে তা মুখে ১৫ মিনিট ধরে রাখুন, তারপর ধুঁয়ে ফেলুন। এক মাস নিয়মিত রূপচর্চায় শসার ব্যবহার নিস্তেজ ত্বকে এনে দেবে প্রখর উজ্জ্বলতা।

দই

দই ত্বকের দাগ দূর করে। ছবি: সংগৃহীত

দইয়ে বিদ্যমান ল্যাকটিক এসিড ত্বককে পরিপূর্ণ ভাবে পরিষ্কার করতে ভালো কার্যকরি। ত্বকে ৫ মিনিট দই লাগিয়ে তা উষ্ণ জল দিয়ে ধুঁয়ে ফেলুন, এতে ত্বকের দাগগুলোও দূর হবে।

কমলা

কমলা ত্বকের জেল্লা ফিরিয়ে আনে। ছবি: সংগৃহীত

দুই চামচ কমলার রসের সঙ্গে এক চিমটি হলুদ গুড়া মিশিয়ে রাতে ঘুমানোর আগে মুখে ব্যবহার করুন। পরদিন সকালে তা ধুঁয়ে ফেলুন। এতে ত্বকের জেল্লা ফিরে আসবে এবং ত্বক উজ্জ্বল হবে।

মধু

মধু ত্বকের আদ্রতা ফিরিয়ে আনে। ছবি: সংগৃহীত

ত্বকে ডার্ক শেড পড়ার একটি কারণ হচ্ছে শুষ্কতা। মধু সাধারণত ত্বককে উজ্জ্বল করতে এবং ত্বকের আদ্রতা ফিরিয়ে আনতে খুব সহায়ক হিসেবে কাজ করে। মুখে দৈনিক ১০ মিনিট করে মধুর ব্যবহার করুন। এটি ত্বকের মৃত কোষগুলোকে দূর করার পাশাপাশি ত্বককে উজ্জ্বল রাখবে।