প্রতীকী ছবি: সংগৃহীত
সারী-গোয়াইনঘাট সড়কে লেগুনা সিএনজি অটোরিক্সার মুখোমুখি সংঘর্ষে ঘঠনাস্থলে নিহত ১, আহত ৪, প্রতিবাদে উত্তেজিত জনতার সড়ক অবরোধ। গতকাল ৯ জুন রবিবার সারী-গোয়াইন সড়কের কুরিহাই নামক স্থানে সিএনজি, লেগুনার মুখোমুখি সংঘর্ষে একই পরিবারের ৫ সদস্য দূর্ঘটনা কবলিত হলে ঘটনা স্থলে মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়ে গোয়াইনঘাট উপজেলার আলীরগাঁও ইউনিয়নের লাফনাউট (মইপুর) গ্রামের ইসলাম উদ্দিনের শিশু কন্যা প্রিয়া আক্তার(১২)। আহতরা হলেন প্রিয়া আক্তারের মা ফরিদা বেগম(৩৫), সুফিয়ান আহমদ(১৬), রেজওয়ান আহমদ(১২) ও সাফায়াত হোসেন(১০), আহতদের জৈন্তাপুর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে উন্নত চিকিৎসার জন্য সিলেট এম.এ.জি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করে।
স্বজনদের সাথে আলাপকালে জানা যায়, ইসলাম উদ্দিন পরিবার নিয়ে সিলেটের গোলাপগঞ্জ উপজেলার চারখাই এলাকায় বসবাস করে আসছেন বেশ কিছুদিন থেকে ঈদুল ফিতর উদযাপনের জন্য পরিবারের সবাইকে নিয়ে জন্ম মাটির টানে গ্রামের বাড়িতে ছুটে আসেন। আত্নীয়-স্বজনের সাথে ঈদ উদযাপনের পর সিএনজি অটোরিক্সা দিয়ে চারখাইয়ে ফেরার পথে সড়ক দূর্ঘটনায় কবলিত হলে এলাকায় সুখের ছায়া নেমে আসে। নাম্বার বিহীন গাড়ী ও অদক্ষ গাড়ী চালকের কারণে প্রতিনিয়ত সারী-গোয়াইনঘাট সড়কে দূর্ঘটনা ঘটলেও স্থানীয় প্রশাসন এবিষয়ে কর্ণপাত না করায় স্থানীয় জনতা সারী-গোয়াইন সড়কের আলীরগাঁও ইউনিয়নের ধর্মগ্রাম এলাকায় সড়ক অবরোধ করে রাখে।  প্রিয়ার মৃতদেহ জৈন্তাপুর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পড়ে রয়েছে।
এ ব্যাপারে গোয়াইনঘাট থানা পুলিশের এস আই নাছির উদ্দিনের সাথে মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন- এলাকাবাসীর সমন্নয়ে রাস্তার অবরোধ প্রত্যাহার করা হয়েছে।
আজকের পত্রিকা/নাজমুল ইসলাম/জৈন্তাপুর/সিলেট/রাফাত