ঢাকার সড়ক।

সড়কে চরম দুর্ভোগের পর চলতে শুরু করেছে গাড়ির চাকা।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর আশ্বাসে ধর্মঘট তুলে নেয়ায় বৃহস্পতিবার সকাল থেকে ঢাকার সড়কে গণপরিবহন চলতে শুরু করেছে। এতে করে অফিসগামী যাত্রীসহ নগরবাসী সহজেই গন্তব্যে পৌঁছতে পারায় জনমনে স্বস্তি ফিরে এসেছে।

সকালে রাজধানীর উত্তরা, বিশ্বরোড, শাহবাগ, পল্টন , গুলিস্তান মতিঝিল সরেজমিন ঘুরে দেখা যায়, এসব রুটে গতকালের চেয়ে তুলনামূলক গণপরিবহনের সংখ্যা অনেক বেড়েছে। তবে পুরোদমে গাড়ি চলাচল এখনও শুরু হয়নি। সড়ক স্বাভাবিকের তুলনায় কিছুটা ফাঁকা রয়েছে।

এদিকে শাহবাগ থেকে মৎস্য ভবন পর্যন্ত গাড়ির দীর্ঘ লাইন লক্ষ্য করা গেছে। এছাড়া পল্টন মোড় থেকে গুলিস্তান পর্যন্ত গণপরিবহনের জট ছিল ছিল চোখে পড়ার মতো।

মতিঝিলেও গাড়ির জটলা লক্ষ্য করা গেছে। তবে গাড়ি কম ছিল এয়ারপোর্ট-বনানী সড়কে। এই সড়ক কিছুটা ফাঁকা ছিল। বিশ্বরোড-বাড্ডা সড়কেও তুলনামূলক গাড়ি কম ছিল। ক্ষনিক পর পর গাড়ি আসায় যাত্রীদের তেমন ভোগান্তি পোহাতে হয়নি।

গতকাল দিনভর রাজধানীর যে সড়কগুলো ফাঁকা ছিলো আজ চোখে পড়ে নি। গণপরিবহন রাস্তায় নামার ফলে রাজধানী তার আসল চেহারা ফিরে পেয়েছে। রাজধানীর কোথাও কোনো শ্রমিকদের নৈরাজ্যের খবর পাওয়া যায়নি। সাধারণ যাত্রীরা কিছুক্ষণ দাঁড়িয়ে থাকলেও তার গন্তব্যের কাঙ্খিত গাড়িটি পাচ্ছেন। তবে অনেক জেলায় গাড়ি না চলায় চরম দুর্ভোগে পড়েেছেন যাত্রীরা।