অপহৃতা মাদ্রাসা ছাত্র উদ্ধার

গাজীপুরের বাসন থানায় মুক্তিপণের দাবিতে অপহৃত মাদ্রাসাছাত্র মাহফুজুর রহমানকে (৮) উদ্ধার করেছে র‍্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‍্যাব)।

সোমবার চান্দনা চৌরাস্তা এলাকা থেকে ওই শিশু শিক্ষার্থীকে উদ্ধার করা হয়।

মাহফুজুর সুনামগঞ্জের ধর্মপাশা উপজেলার কুর্শিবাড়ী গ্রামের মো. ইয়াকুব আলীর ছেলে। ইয়াকুব আলী পরিবার নিয়ে বাসন থানার নলজানী টিঅ্যান্ডটি রোড এলাকায় বসবাস করেন। মাহফুজ স্থানীয় তাসকিয়াতুল উম্মাহ হিফজুল কুরআন মাদ্রাসার প্রথম শ্রেণির ছাত্র।

র‌্যাব-১-এর স্পেশালাইজড কোম্পানি পোড়াবাড়ী ক্যাম্পের কোম্পানি কমান্ডার আবদুল্লাহ আল-মামুন জানান, গত রবিবার বিকেল সাড়ে ৫টার মাদ্রাসায় যাওয়ার জন্য বাসা থেকে বের হয় মাহফুজ। পথে টিঅ্যান্ডটি রোড এলাকায় অজ্ঞাত কয়েক ব্যক্তি জোরপূর্বক তাকে মাইক্রোবাসে তুলে অপহরণ করে।

এদিকে স্বজনরা কোনো খোঁজখবর না পেয়ে বিভিন্ন স্থানে মাহফুজকে খোঁজাখুঁজি করতে থাকে। শেষমেশ পোড়াবাড়ী র‌্যাব-১ ক্যাম্পে অভিযোগ জানায়। এরই মাঝে একই দিন রাতে অপহরণকারীরা মাহফুজকে খুন করার হুমকি জানিয়ে মোবাইল ফোনে তার পরিবারের কাছে পাঁচ লাখ টাকা মুক্তিপণ দাবি করে।

পরে সোমবার রাতে গোপন খবরের ভিত্তিতে র‍্যাব জানতে পারে, অপহৃত ওই শিশুসহ অপহরণকারীরা চান্দনা চৌরাস্তা এলাকায় অবস্থান করছে। ওই খবরের ভিত্তিতে কোম্পানি কমান্ডার আবদুল্লাহ আল মামুনের নেতৃত্বে অভিযান চালায় র‍্যাব। সে সময় র‌্যাবের উপস্থিতি টের পেয়ে শিশুটিকে ফেলে রেখে গাড়িতে করে পালিয়ে যায় অপহরণকারীরা।

পরে মাহফুজকে এলাকার সুমন টেলিকমের সামনে থেকে উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় আইনগত ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে বলে জানিয়েছে র‍্যাব।

আজকের পত্রিকা/এমএআরএস