গাজীপুরের কোনাবাড়ীতে মাদক, সন্ত্রাস, জঙ্গীবাদ ও বাল্যবিবাহ নির্মূলে জনসচেতনমূলক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

শুক্রবার (২৩আগস্ট) বিকেলে কোনাবাড়ী পূর্বপাড়া এলাকায় জনগণের আয়োজনে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

সামাদ মন্ডলের সঞ্চালনায় স্থানীয় কাউন্সিলর মো.নাসির উদ্দিন মোল্লার সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কোনাবাড়ী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি এমদাদ হোসেন।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, কোনাবাড়ী থানার ইন্সপেক্টর তদন্ত কলিন্দ্রনাথ গোলদার ও ইন্সপেক্টরঅপারেশন রাফিউল করিম রাফি।

এ সময় বক্তব্য রাখেন, কোনাবাড়ী পূর্বপাড়ার স্থায়ী বাসিন্দা বিশিষ্ট সমাজসেবক মো.আনোয়ার হোসেন সরকার, কামরুল ইসলাম, মো.আলম সরকার, মুফতি শেখ বেলাল প্রমুখ।

সভায় শত শত উপস্থিতির মাঝে ওসি এমদাদ হোসেন , মাদক, সন্ত্রাস, জঙ্গিবাদ ও বাল্য বিবাহ সম্পর্কে জনসচেতনমূলক আলোচনা করেন। জেলা প্রশাসন,আইন-শৃংখলা বাহিনী ছাড়াও এসব অপরাধ নির্মূল করতে অভিবাবক, স্কুল শিক্ষকসহ সকল সুশীল সমাজের মানুষদের সহযোগীতা প্রয়োজন।

সমাজে একশ্রেনীর মানুষ আছে যারা নিজেরা আর্থিক ফায়দা লুটতে ন্যায়কে অন্যায় বানাচ্ছে, অন্যায়কে ন্যায় বলছে । এসব সমাজ বিরোধী, দেশ বিরোধী কাজকে সবাই মিলে নির্মূল করতে হবে।

তিনি আরও বলেন, প্রত্যেক বাবা- মায়ের জানা উচিত তাদের সন্তানেরা কোথায় যায়, কার সাথে মিশে, যার সাথে মিশছে সে কি করে সে দিকে খেয়াল রাখা। সন্তানদের সময় দেয়া। তাই অভিভাবকদের সচেতনতাই পারে এই মাদকের ছোবল এবং জঙ্গীবাদ ও বাল্য বিবাহ থেকে জাতিকে রক্ষা করতে। তাই আসুন আমরা সকলেই আমাদের সন্তানের প্রতি খেলায় রাখবো শিক্ষীত সমাজ গড়ে তুলবো।

ইন্সপেক্টর তদন্ত কলিন্দ্রনাথ গোলদার বলেন,এলাকাবাসী মানুষের কল্যানের জন্য যে সকল ভালো কাজ করবেন ,তাদের এ কাজে প্রশাসন সকল প্রকার সহযোগীতা করবেন বলে জানান।

তিনি আরও বলেন,মাদক, জঙ্গী ও বাল্যবিবাহ শুধু সামাজিক ব্যাধি নয় । যা আজ আমাদের সমাজকে নয় পুরো জাতিকে ধ্বংসের মুখে ঠেলে দিচ্ছে। আমাদের এই ভয়াবহ মাদক থেকে দূরে থাকতে হবে।

বিশেষ করে যুব সমাজ এই মরণ ব্যাধি মাদকের নেশায় আক্রান্ত হয়। বর্তমান সরকার মাদককের বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স ঘোষণা দিয়েছে। তবুও বর্তমানে তৃণমূল পর্যায়ে এখনো হাজার হাজার যুবকের জীবন ধ্বংস হচ্ছে এই মাদকের ছোবলে।

শহীদুল ইসলাম/গাজীপুর