চীনে অনুষ্ঠিতব্য দ্বিতীয় ওয়ার্ল্ড ইকো-ডিজাইন কনফারেন্সে ২০১৯ যোগ দিচ্ছেন শিল্পমন্ত্রী নূরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ূন। বুধবার (৪ ডিসেম্বর) দিবাগত রাত পৌনে ১টায় চীনের উদ্দেশে ঢাকা ত্যাগ করবেন তিনি।

চীন এবং জাতিসংঘ শিল্প উন্নয়ন সংস্থা (ইউনিডো) যৌথভাবে আয়োজিত সম্মেলন আগামী ৬ ও ৭ ডিসেম্বর চীনের গুয়াংজুতে অনুষ্ঠিত হবে। এতে অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখবেন শিল্পমন্ত্রী।

দুই দিনব্যাপী সম্মেলনে নয় সদস্যের বাংলাদেশ প্রতিনিধিদলের নেতৃত্ব দেবেন মন্ত্রী। শিল্প মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব হেলাল উদ্দীন, উপ সচিব আবদুল ওয়াহেদ, প্রধান হিসাব রক্ষণ কর্মকর্তা রেজাউল ইসলাম, বুটিক শিল্প উদ্যোক্তা মানতাশা আহমেদ ও মরিয়াম নার্গিস, পাটপণ্য উদ্যোক্তা মোহাম্মদ জুল হোসেন জনি, কণ্ঠশিল্পী মনির হোসেন এবং নৃত্যশিল্পী হেনা হোসেন প্রতিনিধি দলে অন্তর্ভুক্ত রয়েছেন। আগামী ৮ ডিসেম্বর শিল্পমন্ত্রীর দেশে ফেরার কথা রয়েছে।

সম্মেলনে বাংলাদেশকে ‘সম্মানিত অতিথি রাষ্ট্র’ এর মর্যাদা দেয়া হয়েছে। এর ভিত্তিতে সম্মেলনস্থলে বাংলাদেশি ডিজিটাল আর্ট প্রদর্শনী অনুষ্ঠিত হবে। পাশাপাশি বাংলাদেশের নৃত্য, গানসহ সমৃদ্ধ সাংস্কৃতিক কর্মকাণ্ড উপস্থাপন এবং ঐতিহ্যবাহী হস্ত ও কারুশিল্প, ফ্যাশন ওয়্যার ইত্যাদি প্রদর্শন করা হবে।

এ সম্মেলন টেকসই নগর ও পরিবেশ ব্যবস্থাপনায় ডিজিটাল ও সাইবার প্রযুক্তি ব্যবহারের পাশাপাশি নতুন উদ্ভাবনের প্রয়োগের লক্ষ্যে অংশগ্রহণকারী দেশগুলোর মধ্যে দ্বিপাক্ষিক ও বহুপাক্ষিক সহায়তার সুযোগ উন্মুক্ত করবে। এটি ২০৩০ সাল নাগাদ টেকসই উন্নয়ন অভীষ্ট অর্জন এবং গণচীনের ‘বেল্ট এন্ড রোড’ উদ্যোগ বাস্তবায়নে সহায়তা করবে। ফলে বিভিন্ন দেশ ও আঞ্চলিক পর্যায়ে পরিবেশ ও প্রতিবেশবান্ধব টেকসই শিল্পায়নের ধারা জোরদার হবে। এতে অংশগ্রহণের মাধ্যমে বাংলাদেশের শিল্পখাতে পরিবেশবান্ধব নতুন প্রযুক্তির ব্যবহার বাড়বে বলে আশা করা হচ্ছে।