শোয়ের ঠিক একদিন আগে মাহতিম শাকিব নাগরিক টিভিকে জানিয়েছেন, তিনি শোতে অংশ নিতে পারবেন না। ছবি: সংগৃহীত

গত এক মাস ধরে নাগরিক টিভির পর্দায় প্রচারণা চলেছে, ঈদের পঞ্চম দিন মাহতিম শাকিব ও ইমরান হোসেন যৌথভাবে সরাসরি গানের মেলা অনুষ্ঠানে অংশ নেবেন। বিভিন্ন গণমাধ্যমে সংবাদও প্রকাশ হয়েছে। কিন্তু শোয়ের ঠিক একদিন আগে মাহতিম শাকিব নাগরিক টিভিকে জানিয়েছেন, তিনি শোতে অংশ নিতে পারবেন না। কারণ বগুড়ার একটি শো তিনি হাতে নিয়েছেন এবং সেখানে অনেক টাকায় শোটি পেয়েছেন।

মাহতিম শাকিবের বিরুদ্ধে ঈদের অনুষ্ঠানের শিডিউল ফাঁসানোর অভিযোগ এভাবেই করলেন নাগরিক টিভির অনুষ্ঠান বিভাগের প্রধান কামরুজ্জামান বাবু। তিনি জানান, মাহতিম শাকিব, এক মাস আগে ইমরানসহ নাগরিকের অনুষ্ঠানে অংশ নিতে দিনক্ষণ ও টাকা পয়সা চূড়ান্ত করেন। অথচ একদিন আগে রাত একটার সময় জানান যে, বগুড়ার একটি শো তিনি হাতে নিয়েছেন।’

কামরুজ্জামান বাবু বলেন, ‘যে শিল্পী কেবল গান শুরু করেছেন, আর শুরুতেই যদি এভাবে বেশি টাকার কারণে একটি শিডিউল শো ফাঁসিয়ে দিয়ে অন্য শো নিয়ে নেন, তবে তার কাছে ভবিষ্যতে আমরা আর কীবা আশা করতে পারি! ভবিষ্যতে শাকিবকে নিয়ে আর কেউ কাজ করার কথা চিন্তা করতে পারবে না। তিনি আমাদের সঙ্গে অপেশাদারী আচরণ করলেন।’

এদিকে শাকিবের কারণে ইমরান হোসাইন সকল রকমের প্রস্তুতি নিয়ে থাকলেও, তিনি আর গানের অনুষ্ঠানে অংশ নিতে পারছেন না বলে জানা গেছে।

উল্লেখ্য এর আগে আরমান আলিফের বিরুদ্ধেও শিডিউল ফাঁসানোর অভিযোগ উঠেছিল। বাংলা ভিশনের একটি অনুষ্ঠানে তিনি আসার কথা থাকলেও আসেননি। কেউ কেউ বলছেন নতুন প্রজন্মের শিল্পীদের মধ্যে এখনো পেশাদারিত্ব মনোভাব তৈরি হয়নি। অর্থটাকেই তারা মুখ্য মনে করছেন।

আজকের পত্রিকা/এআরকে