ইরানের সঙ্গে নতুন একটি চুক্তি করা তার জন্য কঠিন হয়ে পড়েছে। ট্রাম্প ২০১৮ সালের মে মাসে ইরানের পরমাণু সমঝোতা থেকে বেরিয়ে যাওয়ার পর থেকে অসংখ্যবার আলোচনায় বসার আগ্রহ প্রকাশ করে তেহরানের নেতিবাচক জবাব পাওয়ার পর মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প এ মন্তব্য করেন। খবর পার্স ট্যুডে।

সোমবার হোয়াইট হাউসে এক সংবাদ সম্মেলনে ইরানের সঙ্গে চলমান উত্তেজনা সম্পর্কে ট্রাম্প বলেন, তারা (ইরানিরা) আমাদের সঙ্গে অসম্মানজনক আচরণ করছে। এ অবস্থায় তাদের সঙ্গে কোনো সমঝোতায় যাওয়া আমার জন্য কঠিন হয়ে পড়েছে।

ইরানের বিরুদ্ধে ‘সর্বোচ্চ চাপ’ প্রয়োগের যে নীতি ট্রাম্প প্রশাসন নিয়েছে তার বিরুদ্ধে যুক্তরাষ্ট্রের ভেতরেই সমালোচনার ঝড় উঠেছে।

এ সম্পর্কে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প বলেন, ইরানের ব্যাপারে সবচেয়ে খারাপ পরিস্থিতির সম্মুখীন হওয়ার জন্যও ওয়াশিংটনের প্রস্তুতি রয়েছে।

এ সময় ইরানে যুক্তরাষ্ট্রের একদল গুপ্তচর আটক হওয়ার ব্যাপারে দৃষ্টি আকর্ষণ করা হলে ট্রাম্প দাবি করেন, তারা (ইরান) মিথ্যা বলছে।

এর আগে, ইরানের গোয়েন্দা মন্ত্রণালয়ের গুপ্তচরবিরোধী দফতরের পরিচালক সোমবার এক সংবাদ সম্মেলনে জানিয়েছিলেন, সিআইএ’র হয়ে কাজ করা ১৭ জন পেশাদার গুপ্তচরকে গত ১৮ জুন আটক করা হয়েছে।

তিনি জানান, এসব গুপ্তচর সরকারের বিভিন্ন সংস্থা ও বেসরকারি সেক্টরে কর্মরত ছিলেন যাদের সঙ্গে কয়েকটি কেন্দ্রের যোগাযোগ রয়েছে। এসব কেন্দ্র তাদের জন্য ঠিকাদার হিসেবে কাজ করে। দেশের অর্থনৈতিক, পরমাণু, সামরিক ও সাইবার প্রতিষ্ঠানের ভেতরে এসব কেন্দ্রের অস্তিত্ব বিদ্যমান।

আজকের পত্রিকা/এমএআরএস