গত ৮ ডিসেম্বর জমকালো উদ্বোধনের মধ্য দিয়ে পর্দা উঠেছিল ঘরোয়া ক্রিকেটের সবচেয়ে জনপ্রিয় বঙ্গবন্ধু বিপিএল টুর্নামেন্টের। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা উদ্বোধন করেছেন বঙ্গবন্ধু বিপিএলের।

এবার মাঠের লড়াইয়ের পালা। আজ থেকে মাঠে গড়াচ্ছে বঙ্গবন্ধু বিপিএলের ব্যাট-বলের লড়াই। সাত দলের অংশগ্রহণের প্রায় দেড় মাসের এই টি-২০ টুর্নামেন্টে মোট ম্যাচ হবে ৪৬টি। ১৭ জানুয়ারি মিরপুর শেরেবাংলা স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত হবে ফাইনাল ম্যাচ। প্রতিদিন অনুষ্ঠিত হবে দুটি করে ম্যাচ। ঢাকার বাইরে চট্টগ্রাম ও সিলেটে অনুষ্ঠিত হবে বঙ্গবন্ধু বিপিএলের ম্যাচ।

আজ টুর্নামেন্টের উদ্বোধনী ম্যাচে চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের মুখোমুখি হবে সিলেট থান্ডার। ম্যাচটি শুরু হবে দেড়টায়। দিনের দ্বিতীয় ম্যাচে কুমিল্লা ওয়ারিয়র্সের প্রতিপক্ষ রংপুর রেঞ্জার্স। ম্যাচটি শুরু হবে সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায়।

বঙ্গবন্ধুর প্রতি শ্রদ্ধায় বিশেষ আসর বলেই কি না আগের আসরে খেলা ফ্র্যাঞ্চাইজিদের বাদ দিয়েছে বিসিবি। টুর্নামেন্টের সার্বিক ব্যয়ভার বহন করছে বিসিবি। টিম স্পন্সর হিসেবে নেওয়া হয়েছে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানকে। স্পন্সর পায়নি শুধু কুমিল্লা ওয়ারিয়র্স। যার তত্ত্বাবধান করছে বিসিবি।

তবে এটুকু সত্য, আগের আসরগুলোর তুলনায় এবার বিপিএলে বিদেশি তারকা ক্রিকেটারের উপস্থিতি খুবই কম। ষষ্ঠ আসরে স্টিভেন স্মিথ, ডেভিড ওয়ার্নার, এবি ডি ভিলিয়ার্স, অ্যালেক্স হেলসরা খেলেছিলেন। সে তুলনায় সপ্তম আসরে সাত দলে নেই বড়ো নাম। বিদেশিদের মধ্যে শহীদ আফ্রিদি, আন্দ্রে রাসেলরাই এবার বড়ো তারকা। ক্রিস গেইলও খেলবেন মাত্র দুই ম্যাচ।