আজ মঙ্গলবার চাঁদপুরের অর্ধশত গ্রামে পবিত্র ঈদুল ফিতর উদযাপন করবেন মুসলিম সম্প্রদায়ের একাংশ।

জেলার হাজীগঞ্জের সাদ্রা দরবার শরীফের মরহুম পীর মাওলানা ইসহাক (রহ.) বিগত ১৯৩৩ সাল থেকে আরব বিশ্ব তথা চন্দ্রমাস হিসেব করে এভাবে দুটি ঈদ উদযাপন প্রচলন করেন। তার অনুসারীরা এখনো সেই ধারা চালু রেখেছেন।

মঙ্গলবার (০৪ জুন) সকালে জেলার হাজীগঞ্জ, শাহরাস্তি, মতলব ও ফরিদগঞ্জে বেশ কয়েকটি ঈদের নামাজের জামাত অনুষ্ঠিত হবে।

যেসব গ্রামে আগাম ঈদ হবে: হাজীগঞ্জ উপজেলার সাদ্রা, সমেশপুর, অলীপুর, বলাখাল, মনিহার, ভোলাচোঁ, জাক্নি, সোনাচোঁ, প্রতাপপুর, বাসারা, ফরিদগঞ্জ উপজেলার উভারামপুর, উট্তলী, মুন্সিরহাঁট, মূলপাড়া, বদরপর, আইটপাড়া, সুরঙ্গচর, বালুথুবা, কাইতাপাড়া, নূরপুর, সাচনমেঘ, ষোল্লা, হাঁসা, গোবিন্দপুর; মতলবের দশানী, মোহনপুর, পাঁচানী এবং শাহরাস্তি ও কচুয়ার ক’টি গ্রাম।

তার মধ্যে উল্লেখযোগ্য জামাতে ইমামতি করবেন ১০টায় হাজীগঞ্জের সাদ্রা মাদ্রাসা মাঠে মাওলানা আরিফ চৌধুরী, জেলার ফরিদগঞ্জ উপজেলার বদরপুর ঈদগাহ মাঠে মাওলানা আবুল খায়ের এবং মুন্সিহাট বাজার বড় মসজিদে ইমামতি করবেন মাওলানা মাহবুবুর রহমান।

তারা মধ্যপ্রাচ্য এর সাথে মিল রেখে ঈদ পালণ করেন।

অন্যদিকে, ঈদকে কেন্দ্র করে চাঁদপুরের এসব গ্রামে এখন উৎসবমুখর পরিবেশ বিরাজ করছে।

শায়েল/আজকের পত্রিকা