অসুস্থ দুই অভিনেতাকে ২০ লাখ টাকা অনুদান দিলেন প্রধানমন্ত্রী। ছবি : সংগৃহীত

অনেকদিন ধরেই শারীরিক অসুস্থতায় ভুগছেন বাংলার দুই গুণী অভিনয় শিল্পী জামিলুর রহমান শাখা এবং জ্যাকি আলমগীর। সম্প্রতি এই দুই অভিনেতার পাশে দাঁড়ালেন প্রধানমন্ত্রী। দুজনকে ২০ লাখ টাকা অনুদান দিয়েছেন তিনি।

জামিলুর রহমান শাখা মঞ্চ, টেলিভিশন, বেতার নাটকে অভিনয় করলেও চলচ্চিত্রাভিনেতা হিসেবেই পরিচিতি পেয়েছেন। এখন পর্যন্ত ছয় শতাধিক চলচ্চিত্রে তিনি অভিনয় করেছেন।

অন্যদিকে জ্যাকি আলমগীরকে দর্শক একজন কৌতুকাভিনেতা হিসেবেই বেশি চিনেন। তার অভিনয়ে দর্শক হাসিতে লুটিয়ে পড়েন। দর্শককে হাসাতেই ভালোবাসেন জ্যাকি আলমগীর। প্রায় সাত শতাধিক চলচ্চিত্রের অভিনতো জ্যাকি আলমগীর।

বাংলার এই দুই প্রখ্যাত শিল্পী দীর্ঘদিন হলো শারীরিক অসুস্থতা ভুগছেন। অথচ আর্থিক সংকটের কারণে ঠিকমতো চিকিৎসাও করাতে পারছিলেন না তারা। অবশেষে এই দুই অভিনেতাকে ২০ লাখ টাকা অনুদান দিয়েছেন পাশে দাঁড়িয়েছেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী।

এই অনুদান পেতে সার্বিকভাবে সহযোগিতা করেছে বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতি। শিল্পী সমিতির সাধারণ সম্পাদক জায়েদ খান বলেন, ‘আমরা জামিলুর রহমান শাখা ও জ্যাকি আলমগীর ভাইয়ের জন্য আবেদন করেছিলাম। যার পরিপ্রেক্ষিতে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী তাদের ২০ লাখ টাকা অনুদান দিয়েছেন।

চলতি বছরের শুরুর দিকে জ্যাকি আলমগীর হার্টের সমস্যা নিয়ে রাজধানীর বক্ষব্যাধি হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন । অর্থের অভাবে তার চিকিৎসা চলছিল ধীরগতিতে।

উল্লেখ্য, জ্যাকি আলমগীর ১৯৮২ সালে প্রয়াত পরিচালক শহীদুল ইসলাম খোকন পরিচালিত ‘রক্তের বন্দী’ চলচ্চিত্রে প্রথম অভিনয় করেন। এর আগে ‘আরণ্যক’ নাট্যদলের সঙ্গে প্রথম অভিনয়ে সম্পৃক্ত ছিলেন।

আর জামিলুর রহমান শাখা ১৯৬২ সালে খসরু নোমানের পরিচালনায় ‘এই তো জীবন’ নাটকে প্রথম মঞ্চে অভিনয় করেন। অভিনেতা ফরিদ আলীর সহযোগিতায় ১৯৬৬ সালে টিভি নাটকে অভিনয় করার সুযোগ হয়। তার অভিনীত নাটকের সংখ্যা প্রায় দুইশ। টিভি নাটকের পাশাপাশি বেতারের নাটকেও অভিনয় করেছেন জামিলুর রহমান শাখা।

আজকের পত্রিকা/কেএইচআর