শারিরীক অসুস্থতার কারণে হৃদরোগ হাসপাতালে সাজাপ্রাপ্ত কয়েদি ইসমাঈল হোসেন সম্রাট ভর্তি থাকায় ৯ অক্টোবর আদালতে হাজির করা সম্ভব হচ্ছে না বলে আদালতকে চিঠি দিয়েছেন ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগারের সিনিয়র জেল সুপার ইকবাল কবির চৌধুরি। তবে তার সহযোগী আরমানকে আদালতে পাঠানো হয়েছে। ১৫ অক্টোবর সম্রাটের রিমান্ড শুনানির দিন ধার্য করেছে আদালত।

উল্লেখ্য, কুমিল্লার চৌদ্দগ্রাম থেকে যুবলীগ নেতা ইসমাইল চৌধুরী সম্রাট কে গ্রেফতার করেছে র‍্যাব। চলমান ক্যাসিনোবিরোধী অভিযান শুরু হওয়ার পর থেকে টেন্ডারবাজি, চাঁদাবাজিসহ নানা অভিযোগের কারণে যুবলীগ নেতা সম্রাটের নাম আলোচনায় আসে।

অভিযানে যুবলীগ, কৃষক লীগ ও আওয়ামী লীগের কয়েকজন নেতা র‍্যাব ও পুলিশের হাতে গ্রেপ্তার হন। কিন্তু সম্রাট ছিলেন ধরাছোঁয়ার বাইরে।

আজকের পত্রিকা/সিফাত