সাতক্ষীরায় পুলিশ অপরাধ করলে সেটিও আপনারা লিখুন। আমার খারাপ কর্মকাণ্ড আপনাদের চোঁখে ধরা পড়লে সেটিও যেন মিডিয়ার মাধ্যমে প্রচার হয় তাহলে আমি খুশি হব। অপরাধীরা সব সময়ই অপরাধীর আওতায় থাকবে সে যেই হোক না কেন। অপরাধীর পরিচয় শুধুই অপরাধী।

সোমবার বেলা ১২টায় সাতক্ষীরা পুলিশ সুপার কার্যালয়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে মতবিনিময় সভায় এসব কথা বলেন নবাগত পুলিশ সুপার মো. মোস্তাফিজুর রহমান।

তিনি বলেন, পুলিশ, মসজিদের ইমাম, মন্দিরের পুরোহিত অপরাধ করলে সেটি বেশী আলোচিত সমালোচিত হয় তার কারণ হচ্ছে মানুষ এদের মাধ্যমে কোন অপরাধমূলক কর্মকাণ্ড প্রত্যাশা করে না। ২০১৩-১৪ সালে সাতক্ষীরায় যে অস্থিতিশীল পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়েছিল তার কারণে গোটা দেশসহ সারা বিশ্বে সাতক্ষীরার বদনাম হয়েছে। সাতক্ষীরার জঙ্গি, সন্ত্রাস ও মাদক নির্মূলে বরাবরে মতই জিরো টলারেন্স নীতি অবলম্বন করা হবে। সাতক্ষীরার বদনাম হবে এমন কোন কর্মকাণ্ডে জড়িত ব্যক্তি, গোষ্ঠী ও রাজনৈতিক দলের কর্মী বা সমর্থকদের কোন ছাড় নয়। অপরাধীরা অপরাধীর তালিকায় থাকবে। অবস্থা অনুযায়ী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

মতবিনিময় সভায় সাংবাদিকরা সাতক্ষীরার শব্দ দূষণ, যানজট, স্কুল কলেজের সামনে বখাটেদের উৎপাত, মাদক, সাতক্ষীরার বাইপাস সড়কে উশৃঙ্খল তরুণদের রেপোরোয়া মোটর সাইকেল রেসিং, কতিপয় জনপ্রতিনিধিদের মাদকের পৃষ্ঠপোষকতার বিষয়গুলো তুলে ধরেন।

সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে নবাগত পুলিশ সুপার মো. মোস্তাফিজুর রহমান এসব বিষয়ে কার্যকরি পদক্ষেপ গ্রহন করবেন বলে জানান। তিনি বলেন, এখন থেকে শহরের মধ্যে গরু, মহিষ, পল্ট্রি মুরগী বিক্রিসহ অপ্রয়োজনীয় এসব মাইকিং বন্ধ করা হবে। যানজট নিরসনে এখন থেকে শহরের মধ্যে মালবাহী যে কোন প্রতিষ্ঠাণের মালামাল রাত ৮টা থেকে সকাল ৯টা পর্যন্ত সময় নির্ধারণ করে দেওয়া হবে।

বিদ্যালয়ের সামনে বখাটেদের উৎপাত বন্ধে সাতক্ষীরার গালর্স স্কুলের সামনে বিদ্যালয়ে শুরু ও ছুটির সময় পুলিশ মোতায়েন করা হবে। কোন জনপ্রতিনিধি যদি অপরাধমূলক কাজে সঙ্গে সম্পৃক্ত থাকেন তবে তাকেও আইনের আওতায় আনা হবে।

এ সময় পুলিশ সুপার সাতক্ষীরার উন্নয়নে সাংবাদিকদের সঙ্গে পুলিশের একযোগে কাজ করার প্রত্যয় ব্যক্ত করেন।

মতবিনিময় সভায় অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ইলতুৎমিশ, সাতক্ষীরা প্রেসক্লাবের সভাপতি আবু আহম্মেদ, সাধারণ সম্পাদক মমতাজ আহমেদ বাপ্পী, জেলা বিভিন্ন প্রিন্ট ও ইলেকট্রিক মিডিয়ার সংবাদকর্মীসহ পুলিশের বিভিন্ন পর্যায়ের কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

বৈশাখী/সাতক্ষীরা